‘৯৯৯ এ কল করে’ আল্লাহু আকবর বলে বিষপান নলছিটির গাড়িচালকের!

Barisal Crime Trace
প্রকাশিত এপ্রিল ৯ শুক্রবার, ২০২১, ০৮:৪১ অপরাহ্ণ
‘৯৯৯ এ কল করে’ আল্লাহু আকবর বলে বিষপান নলছিটির গাড়িচালকের!

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ জাতীয় জরুরি সেবা ৯৯৯’ নম্বরে ফোন করে পারিবারিক এবং স্বাস্থ্যগত সমস্যার কথা জানিয়ে বিষপান করা এক ব্যক্তিকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে জীবন বাঁচিয়েছে ঝালকাঠির নলছিটি থানা পুলিশ।

৯৯৯-এ কথা বলার একপর্যায়ে কালেমা পড়ে আল্লাহু আকবর বলে বিষপান করেন তিনি। এরপর একটি চিৎকারের আওয়াজের পর ফোনের সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।

বৃহস্পতিবার (১ এপ্রিল) দুপুরে জাতীয় জরুরি সেবা ৯৯৯-এর পরিদর্শক আনোয়ার সাত্তার এ তথ্য জানান।

 

তিনি বলেন, বৃহস্পতিবার সকাল ৯টা ৫০ মিনিটে ৯৯৯-এ একজন ফোন করে জানান, তিনি বিভিন্ন কারণে হতাশাগ্রস্ত। তিনি পেশায় একজন গাড়িচালক। বিবাহিত কিন্তু নিঃসন্তান। তার ডায়াবেটিস ও চোখের সমস্যাসহ নানা শারীরিক সমস্যা রয়েছে। এছাড়াও তার জায়গা-জমির ভাগবাটোয়ারা নিয়ে ভাইদের সঙ্গে বিরোধ চলছে। পরিবারের অন্য সদস্যদের কাছে তিনি ও তার স্ত্রী অপমানের শিকার হচ্ছেন। এ কারণে তিনি আর বেঁচে থাকতে চান না।

কান্নাজড়িত কণ্ঠে ওই ব্যক্তি আরও জানান, তিনি দুই বোতল বিষ কিনে এনেছেন। ৯৯৯-এর কাছে তার মনের কষ্ট জানিয়ে তিনি বিষ পান করবেন। ৯৯৯-এর পরিদর্শক আনোয়ার সাত্তার জানান, ৯৯৯ তাকে আশ্বস্ত করা হয় তার সমস্যার আইনি সহায়তা প্রদান করা হবে। এ ধরনের আত্মঘাতী কাজ থেকে বিরত থাকার জন্য তাকে অনুরোধ জানানো হয়। ইতোমধ্যে কলারের (ওই ব্যক্তি) ঠিকানা জেনে নেয় পুলিশ। তিনি জানান তারা বাড়ি ঝালকাঠি জেলার নলছিটি থানার ষাইটপাইক্যা গ্রামে।

৯৯৯ কলারের সঙ্গে কনফারেন্সের মাধ্যমে নলছিটি থানার ডিউটি অফিসারের কথা বলিয়ে দেয়। থানা থেকেও কলারকে বোঝানো হয় আত্মহত্যা করলে তার কোনো সমস্যার সমাধান হবে না। ডিউটি অফিসারের সঙ্গে কথা বলার একপর্যায়ে কালেমা পড়ে আল্লাহু আকবর বলে ওই ব্যক্তি বিষ পান করেন। এরপর একটি চিৎকারের আওয়াজ শোনা যায়, পরে ফোন সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।

এরপর নলছিটি থানা পুলিশের একটি দল দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছায়। নলছিটি থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) মিনহাজ ৯৯৯-কে জানান, তারা দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছে অজ্ঞান অবস্থায় আত্মহত্যাচেষ্টাকারী ব্যক্তিকে (৩৬) উদ্ধার করে তার আত্মীয়স্বজনের সহায়তায় নলছিটি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। কিন্তু সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে ওই ব্যক্তিকে বরিশাল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেয়া হয়।

এরপর আত্মহত্যাচেষ্টাকারী ব্যক্তিকে বরিশাল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়। বরিশাল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পুলিশ ক্যাম্পের নায়েক মাসুদ ৯৯৯-কে জানান, ওই ব্যক্তির পাকস্থলী ওয়াস বা পরিষ্কার করা হয়েছে। তার জ্ঞান ফিরেছে, তবে তাকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টা নিবিড় পর্যবেক্ষণে রাখা হবে।




আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি বরিশাল ক্রাইম ট্রেস”কে জানাতে।
ই-মেইল করুনঃ[email protected]