গৌরনদীতে মোবাইলে দীর্ঘদিন প্রেম, বিয়ের আশ্বাসে আটকে রেখে ছাত্রীকে ধর্ষণ

Barisal Crime Trace
প্রকাশিত জুন ১ মঙ্গলবার, ২০২১, ০৬:৩৬ অপরাহ্ণ
গৌরনদীতে মোবাইলে দীর্ঘদিন প্রেম, বিয়ের আশ্বাসে আটকে রেখে ছাত্রীকে ধর্ষণ

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ বরিশালের গৌরনদী উপজেলায় মোবাইল ফোনে দীর্ঘদিন প্রেমের পর বিয়ের আশ্বাসে ডেকে নিয়ে আট দিন আটকে রেখে এক মাদ্রাসাছাত্রীকে (১৭) ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ ঘটনায় ইমরান হাওলাদার (২১) নামে এক যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

এর আগে সোমবার দিবাগত রাতে নির্যাতিত ওই ছাত্রী (ভিকটিম) বাদী হয়ে অভিযুক্ত ইমরান হাওলাদারকে আসামি করে গৌরনদী থানায় একটি ধর্ষণ মামলা করে। এর পরই অভিযান চালিয়ে আসামিকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও থানার এসআই মো. শাহাবুদ্দিন জানান, গত তিন মাস আগে মোবাইল ফোনের মাধ্যমে উপজেলার ডুমুরিয়া গ্রামের শাহ্ আলম হাওলাদারের ছেলে রাজমিস্ত্রি ইমরান হাওলাদারের সঙ্গে মাদ্রাসার ওই ছাত্রীর প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে।

এর পর বিয়ের আশ্বাসে প্রেমিক ইমরান হাওলাদার গত ২১ মে ওই মাদ্রাসাছাত্রীকে ঢাকার আশুলিয়া থানাধীন নবীনগর এলাকার একটি বাসায় নিয়ে যায়। সেখানে আট দিন আটকে রেখে জোরপূর্বক ওই ছাত্রীকে কয়েকবার ধর্ষণ করে ইমরান।

এর পর রাজমিস্ত্রি ইমরান গত ২৯ মে গৌরনদীর সমরসিংহ গ্রামে ওই ছাত্রীর তালই আবুল কালামের বাড়িতে ভিকটিমকে রেখে পালিয়ে যায়।

এ ব্যাপারে ভিকটিম বাদী হয়ে ইমরান হাওলাদারকে আসামি করে সোমবার রাতে গৌরনদী থানায় একটি ধর্ষণ মামলা করে। তাৎক্ষনিক তিনি সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে গৌরনদীর বাকাই গ্রামে অভিযান চালিয়ে মামলার আসামি ইমরান হাওলাদারকে গ্রেফতার করে।

ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য ভিকটিমকে মঙ্গলবার সকালে বরিশাল শেরেবাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। গ্রেফতার ইমরানকে দুপুরে বরিশাল অতিরিক্ত চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে সোপর্দ করা হয়। এর পর আদালতের বিচারক তাকে বরিশাল কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠায় বলে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা শাহাবুদ্দিন জানান।




আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি বরিশাল ক্রাইম ট্রেস”কে জানাতে।
ই-মেইল করুনঃ[email protected]