গলাচিপায় হোটেলে নাস্তা খাওয়ার সময় টিভি ছাড়তে বলায় ৬ জনকে পিটিয়ে জখম!

Barisal Crime Trace
প্রকাশিত জুন ৪ শুক্রবার, ২০২১, ০৬:০৪ অপরাহ্ণ
গলাচিপায় হোটেলে নাস্তা খাওয়ার সময় টিভি ছাড়তে বলায় ৬ জনকে পিটিয়ে জখম!

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ পটুয়াখালীর গলাচিপায় হোটেলে নাস্তা খাওয়ার সময় টেলিভিশন ছাড়তে বলায় এক মান্তা (ভাসমান জেলে) পরিবারের নারী ও শিশুসহ ৬ জনকে পিটিয়ে আহত করেছে স্থানীয়রা।

শুক্রবার সকালে উপজেলার গলাচিপা সদর ইউনিয়নের বোয়ালিয়া স্লুইস গেট বাজারে এ ঘটনা ঘটে। গুরুতর আহত আহত মনোয়ারা বেগম (৩০) ও স্বামী বশির তালুকদারকে (৪০) উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্র জানায়, শুক্রবার সকালে বোয়ারিয়া বাজারের ছত্তার মিয়ার হোটেলে মান্তা মনোয়ারা বেগম তার পরিবারের লোকজন নিয়ে নাস্তা করতে যান। এ সময় মনোয়ারার ছেলে ফয়সাল সর্দার টেলিভিশন ছাড়তে বললে হোটেলের অন্য ক্রেতা রাকিব মোল্লা টেলিভিশন ছাড়তে বাধা দেন।

এ নিয়ে কথাকাটাকটির একপর্যায়ে রাকিব মোল্লার নেতৃত্বে ৪-৫ জন স্থানীয় লোকজন তাদের বেধড়ক মারধর করে হোটেল থেকে বের করে দেয়। এ সময় মনোয়ারা (৩০), বশির তালুকদার (৪০), ফয়সাল সর্দার (৭), ইমন সর্দার (৪), মরিয়ম (৩০), মঞ্জু (৪০) আহত হন।

এ ব্যাপারে রাকিব মোল্লা ঘটনা অস্বীকার করে বলেন, ওরা মান্তা, প্রতিদিনই এলাকার মানুষের সঙ্গে অশ্লীল আচরণ করে। বশিরই তার স্ত্রী মনোয়ারাকে মাথা ফাটিয়েছে।

গলাচিপা থানার ওসি শওকত আনোয়ার জানান, অভিযোগ পেয়েছি, তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।




আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি বরিশাল ক্রাইম ট্রেস”কে জানাতে।
ই-মেইল করুনঃ[email protected]