স্বাস্থ্য ঝুঁকিতে বরিশালের মধ্য ও নিন্মবিত্ত পরিবারের শিশুরা

Barisal Crime Trace
প্রকাশিত এপ্রিল ১০ শনিবার, ২০২১, ০১:৩৩ অপরাহ্ণ
স্বাস্থ্য ঝুঁকিতে বরিশালের মধ্য ও নিন্মবিত্ত পরিবারের শিশুরা

স্টাফ রিপোর্টারঃ  নীরব ঘাতক করোনা ভাইরাসের নীরব শিকার শিশুরা। বেকারত্ব ও দারিদ্রের বিরূপ প্রতিক্রিয়ার শিকার হচ্ছে মধ্য ও নিন্মবিত্ত পরিবারের শিশুরা। পরিবারের উপার্যনক্ষম ব্যক্তির বেতন বন্ধ হয়ে যাওয়া, বেতন কমে যাওয়া বা চাকরি চলে যাওয়া কিংবা রাস্তা ঘাটে মানুষের উপস্থিতি কমে যাওয়ায় যাতায়াত ও পরিবহনখাতে যুক্ত কর্মজীবীরা একদিকে যেমন স্বাস্থ্য ঝুঁকি নিয়ে কাজ করছেন তেমনি উপার্জনও অর্ধেকে নেমে এসেছে।

 

এসব পরিবারে আগের মত নেই আহার। শিশুরা পাচ্ছেনা পুষ্টিকর খাবার। যার দীর্ঘমেয়াদী প্রভাব হচ্ছে শিশুর ওজন ও উচ্চতা কমে যাওয়া। আন্তর্জাতিক সংস্থা সেভ দা চিলড্রেনের একটি জরিপে অংশগ্রহণকারী ৬৪ শতাংশ শিশু জানিয়েছে তাদের পরিবার কঠিন খাদ্য সংকটে রয়েছে।

 

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, উপার্জনক্ষম ব্যক্তির আয় কমে যাওয়ায় তার ওপর নির্ভরশীল পরিবারের অন্য সদস্যদের পুষ্টি, শিক্ষা, স্বাস্থ্যের ওপর প্রভাব সৃষ্টি হচ্ছে। পরিবারের সদস্যরা শিশুদের মৌলিক চাহিদা পূরণ ও বাড়তি আবদার মেটাতে পারছেন না। আবার দীর্ঘদিন স্কুল-কলেজ বন্ধ থাকায় আবদ্ধ ঘরে বসে থেকে একাকীত্বে ভুগছেন শিশুরা। এতে বাঁধাগ্রস্থ হচ্ছে শিশুদের বুদ্ধির বিকাশ। একবছর নিয়মতান্ত্রিক পড়ালেখার বাইরে থাকার ফলে বিদ্যালয়ের প্রতি শিশুরা আগ্রহ হারিয়ে ফেলেছে। করোনার ভয়াবহতায় স্কুল নেই, বন্ধুদের সাথে দেখা নেই, খেলাধুলা নেই, ঘরের চার দেয়াল ছাড়া কোথাও বেড়াতে যাওয়ার উপায় নেই। ফলে টেলিভিশন আর মোবাইল ফোনে কার্টুনে আসক্ত হচ্ছে শিশুরা।

 

সারাদিন বাবা-মায়ের আয় রোজগার আর অনিশ্চিত ভবিষ্যৎ নিয়ে উদ্বেগে অনেকটা মানসিক চাঁপে ভুগছে এসব শিশুরা। আবার বাবা ও মায়ের মানসিক চাঁপের কারণে শিশুদের উপর শারীরিক ও মানসিক নির্যাতনও বেড়ে গেছে।

 

বরিশালের বেশ কয়েকজন স্কুল শিক্ষক ও অভিভাবকরা জানান, শুধু চারিদিকের শঙ্কাই শিশুর মনোজগতের ওপর মারাত্মক প্রভাব ফেলছে। শ্রেণীকক্ষে পাঠদান বন্ধ, বন্ধুদের সাথে নেই আড্ডা, খেলাধুলা ও চিত্তবিনোদনের আয়োজনও নেই। সবমিলিয়ে শিক্ষার্থীদের যে ঘাটতি হচ্ছে আগামী বছরেও সেটা কাটিয়ে ওঠা যাবেনা। শিশু বিশেষজ্ঞরা আশঙ্কা করছেন, করোনায় বেকারত্ব ও দারিদ্রের হার বৃদ্ধি পাওয়ায় শিশুদের স্কুল থেকে ঝড়ে পরার আশঙ্কা রয়েছে। পাশাপাশি শিশুশ্রম ও বাল্যবিয়ের ঘটনা বাড়তে পারে।




আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি বরিশাল ক্রাইম ট্রেস”কে জানাতে।
ই-মেইল করুনঃ[email protected]