বাউফলে পাষন্ড জামাই কর্তৃক শিক্ষক মামা শশুরের ওপরে হামলা

Barisal Crime Trace -IS
প্রকাশিত জুলাই ৬ বুধবার, ২০২২, ১০:৩৭ অপরাহ্ণ
বাউফলে পাষন্ড জামাই কর্তৃক শিক্ষক মামা শশুরের ওপরে হামলা

বাউফল প্রতিনিধি: পটুয়াখালীর বাউফলে নাজিরপুর ইউনিয়নে এক পাষন্ড জামাই কর্তৃক শিক্ষক মামা শশুরের ওপর হামলার অভিযোগ পাওয়া গেছে।
ঐ মামা শশুরের নাম মাও.মো: শাহাবুদ্দিন তিনি উপজেলার কেশবপুর ফজলুল হক ফাজিল মাদ্রাসার উপাধ্যক্ষ। তার আপন ভাগ্নি জামাই মোঃ ইমরান হোসেনের নেতৃত্বে এ হামলা চালানো হয়। মঙ্গলবার সন্ধ্যার পূর্ব মুহুর্তে পৌরশহরের আট নম্বর ওয়ার্ড বাংলা বাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।
জানা গেছে, নাজিরপুর গ্রামের সাইফুল ইসলাম কাজীর ছেলে ইমরানের সঙ্গে তিন বছর পূর্বে একই গ্রামের মাও. নূরুল ইসলামের মেয়ে তামান্নার বিয়ে হয়। এ দুই পরিবারের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে পারিবারিক বিবাদ
চলছিল । এ কারনে দীর্ঘ নয় মাস পর্যন্ত তামান্না তাঁর বাপের বাড়ী অবস্থান করছিল। বিষয়টি মিমাংশার জন্য চেষ্টা চালায় তামান্নার মামা মাও.মো:শাহাবুদ্দিন। মঙ্গলবার দুপুরে ইমরান তাঁর স্ত্রী তামান্নার নিজ বাসায় ফিরিয়ে আনতে শ্বশুরবাড়ী গেলে তামান্নার পরিবারের লোকজন ইমরানের অভিভাবক মা-বাবাকে ছাড়া তামান্নাকে দিবেন না বলে জানিয়ে দেন। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে শ্বশুর বাড়ী থেকে ফিরে আসে ইমরান। পরে সন্ধ্যার পূর্ব মুহুর্তে তামান্নার মামা মাও.শাহাবুদ্দিন মাগরিবের নামাজ আদায়ের জন্য বাড়ি থেকে নিজস্ব বাইক যোগে বাংলাবাজার মসজিদে আসার সময় পঞ্চায়েত বাড়ীর মোড়ে নতুন বাজার ইমরানের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের সামনে পৌঁছালে ইমরান লাঠি দিয়ে চলন্ত বাইকে থাকা অবস্থায় তার মাথা আঘাত করে এবং বাইক থেকে পরে যায়। ইমরান ও তাঁর বাবা সাইফুল এবং ছোট ভাই সাঈদ অতর্কিতভাবে লাঠিসোটা দিয়ে পিটিয়ে মাও.মো: শাহাবুদ্দিনকে আহত করে।
প্রত্যক্ষদর্শীরা বলেন যেভাবে মাথায় আঘাত করেছে যদি হেলমেট পড়া না থাকতো তাহলে হয়ত্ব ওখানেই মারা যেতো।পরে অচেতন অবস্থায় স্থানীয়রা তাঁকে উদ্ধার করে উপজলা স্বাস্থ্য কমপ্লক্সে ভর্তি করেন। এ সময় হামলাকারীরা তাঁর কাছ থেকে ২লক্ষ ৩৬ হাজার টাকা নিয়ে যায় বলে জানান আহত ওই উপাধ্যক্ষ মাওঃ শাহাবুদ্দিন।
এ ব্যাপার বাউফল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) আল মামুন বলেন, শিক্ষকের হামলার কথা শুনেছি। লিখিত অভিযোগ পেলে প্রয়াজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।




আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি বরিশাল ক্রাইম ট্রেস”কে জানাতে।
ই-মেইল করুনঃ[email protected]