পানির নিচে ভোলার ১২ গ্রাম


Barisal Crime Trace -GF প্রকাশের সময় : সেপ্টেম্বর ১০, ২০২২, ৬:৩৯ অপরাহ্ণ /
পানির নিচে ভোলার ১২ গ্রাম

নিজস্ব প্রতিবেদক : অতি জোয়ারে মেঘনা নদীতে পানি বেড়ে তলিয়ে গেছে ভোলার নির্মাঞ্চলের ১২টি গ্রাম এবং ইলিশা ফেরিঘাট।

এতে ফেরিতে ওঠা-নামা করতে পারছে না কোনো পরিবহন।

যে কারণে বিরম্বনায় পড়ছেন যাত্রী ও পরিবহন শ্রমিকরা। ফলে কিছু সময়ের জন্য বন্ধ রাখতে হচ্ছে ভোলা-লক্ষ্মীপুর রুটের ফেরি চলাচল।

মেঘনার পানি বিপৎসীমার ৫৫ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হওয়ায় এ অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে বলে জানা গেছে।  শুক্রবার যা ছিল ১৯ সেন্টিমিটার।

এদিকে, মেঘনার অতি জোয়ারে বাঁধের বাইরের রাজাপুর ইউনিয়নের দক্ষিণ রাজাপুর, কন্দকপুর, শ্যামপুর, মেদুয়া, ধনিয়া ইউনিয়নের গঙ্গাকীর্তি, বলরামসুরা, কালীকীর্তিসহ অন্তত ১২ গ্রাম প্লাবিত হয়েছে। এতে দুর্ভোগে পড়েছে উপকূলের বাসিন্দারা।

রাজাপুর গ্রামের গৃহবধূ রুমা বেগম বলেন, দুইদিন ধরে পানিতে তলিয়ে গেছে ঘর-ভিটা। ফলে অনেক দুর্ভোগে রয়েছি। আমাদেন ঘরের রান্নার চুলা জ্বলছে না, পানির মধ্যে ভাসছি।

পূর্ণিমায় সৃষ্ট জোয়ারের প্রভাব ও নিম্নচাপের প্রভাবে পানি বাড়ছে বলে জানিয়েছে পানি উন্নয়ন বোর্ড (পাউবো) ভোলা।

পাউবো ভোলার নির্বাহী প্ররকৌশলী হাসানুজ্জামান বলেন, অতি জোয়ারে বাঁধের বাইরের নিচু এলাকা প্লাবিত হয়েছে, তবে এতে কোনো ক্ষতি হয়নি।