বরগুনায় ধর্ষণের অভিযোগে হাজতে র‌্যাব সদস্য


Barisal Crime Trace -FF প্রকাশের সময় : অক্টোবর ১৪, ২০২২, ১২:১৩ অপরাহ্ণ /
বরগুনায় ধর্ষণের অভিযোগে হাজতে র‌্যাব সদস্য

স্টাফ রিপোর্টার, বরগুনা: বরগুনা জেলার বামনা উপজেলায় বিয়ের আশ্বাস দিয়ে এক তরুণীকে ধর্ষণের অভিযোগে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব) এক সদস্যকে জেলহাজতে পাঠানোর নির্দেশ দিয়েছেন বরগুনার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল।

বৃহস্পতিবার (১৩ অক্টোবর) দুপুরে ওই ট্রাইব্যুনালের বিচারক মো. হাফিজুর রহমান এ আদেশ দিয়েছেন। র‌্যাব সদস্য হলেন, বরিশাল জেলার কাজিরহাট থানার পশ্চিম রতনপুর গ্রামের মোতালেব মাস্টারের ছেলে মো. হুমায়ূন কবির হিমু। তিনি র‌্যাব-১ এ কর্মরত আছেন।

জানা যায়, ওই র‌্যাব সদস্য বরগুনা জেলার বামনা থানায় ২০১১ সালে এসআই পদে চাকরি করতেন। ওই সময় এক তরুণীর সঙ্গে পরিচয় হয়। তরুণীর বাড়িতে হিমু বিভিন্ন সময় যাতায়াত করতেন। বিয়ের আশ্বাস দিয়ে হিমু ওই তরুণীকে একাধিকবার ধর্ষণ করেন।

এদিকে বামনা থানা থেকে বদলি হয়ে র‌্যাব-১ কোম্পানিতে যোগদান করার পরেও হিমু ছুটি নিয়ে বামনা আসতেন। সর্বশেষ ২০১১ সালের ৩০ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যায় হিমু ওই তরুণীর বাড়িতে এসে বিয়ের আশ্বাস দিয়ে তাকে ধর্ষণ করেন। পরবর্তীতে র‌্যাব কর্মকর্তা তরুণীকে বিয়ে করতে অস্বীকার করেন।

ওই তরুণীর বাবা বলেন, বামনা থানার দারোগা আমার মেয়েকে বিয়ে করতে চেয়েছে। আমিও তাকে জামাইর মতো বুঝতাম। বামনা থেকে বদলি হয়ে ঢাকা র‌্যাব অফিসে যোগদান করেও আমাদের বাড়ি আসত। হিমু আমার মেয়ের জীবনটা শেষ করে দিয়েছে। আমি ও আমার মেয়ে হিমুকে অনেক সময় দিয়েছি। হিমু এখন আমার মেয়েকে বিয়ে করতে চায় না। হিমু বলে তার স্ত্রী আছে।

হিমু কোর্ট প্রাঙ্গণে বলেন, আমার বিরুদ্ধে বাদী মিথ্যা মামলা করেছে। বাদীর মেয়েকে আমার সঙ্গে বিয়ে দিতে চেয়েছিল। আমি রাজি না হওয়ায় মামলা করেছে।

আদালতের পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, মামলাটি তদন্ত করেছেন বামনা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা। ঘটনাটি সত্য মর্মে তিনি রিপোর্ট দিয়েছেন।