আমতলীতে বন্যা নিয়ন্ত্রণ বাঁধের জমি দখল নিয়ে সংঘর্ষে নারীসহ আহত ৬


Barisal Crime Trace -FF প্রকাশের সময় : আগস্ট ২১, ২০২৩, ৭:৪৩ অপরাহ্ণ /
আমতলীতে বন্যা নিয়ন্ত্রণ বাঁধের জমি দখল নিয়ে সংঘর্ষে নারীসহ আহত ৬

আমতলী প্রতিনিধি : বরগুনার আমতলী উপজেলায় বন্যা নিয়ন্ত্রণ বাঁধের জমি দখল নিয়ে দুই পক্ষের সংঘর্ষে নারীসহ ছয়জন আহত হয়েছে। সোমবার (২১ আগস্ট) সকালে আমতলী উপজেলার গাজীপুর বন্দরে ঘটনা ঘটে। আহতরা হলেন লিটন গাজী, সালমা বেগম, সোহাগ গাজী, মধু আকন, লাল ভানু ও কহিনুর।

জানা গেছে, উপজেলার গাজীপুর বন্দরের পানি উন্নয়ন বোর্ডের ৯০ শতাংশ জমি রয়েছে। ওই জমির ২২ শতাংশ লিটন গাজীর দখল রয়েছে। প্রতিবেশী বারেক মৃধা ওই জমি তার বন্দোবস্থ দাবি করে সোমবার সকালে দখল করতে বেড়া দিচ্ছিলেন। এ সময় লিটন গাজী এতে বাঁধা দেয়।

এতে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে উভয় পক্ষ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। প্রায় আধা ঘণ্টা চলে দুই পক্ষের ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া। এতে বন্দরে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে বলে জানান প্রত্যক্ষদর্শীরা। সংঘর্ষে লিটন গাজী, সালমা বেগম, সোহাগ গাজী, মধু আকন, লাল ভানু ও কহিনুর আহত হয়।

আহত ছয়জনকে স্বজনরা উদ্ধার করে আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসে। ওই হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. হাবিবুর রহমান আহত মধু আকন ও লাল ভানুকে উন্নত চিকিৎসার জন্য পটুয়াখালী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়েছেন। অপর আহতদের আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।

আহত লিটন গাজী বলেন, পানি উন্নয়ন বোর্ডের আমার দখলীয় জমি বারেক মৃধা ও তার লোকজন দখল করতে আসে। আমি এতে বাঁধা দেয়ায় আমাকে, আমার স্ত্রী ও ছোট ভাইকে কুপিয়ে ও পিটিয়ে গুরুতর জখম করেছে।

বারেক মৃধার মেয়ে আঁখি আক্তার বলেন, পানি উন্নয়ন বোর্ডের বন্দোবস্থ দেয়া জমিতে বেড়া দিতে গেলে লিটন গাজী ও তার লোকজন আমার মা, বোন ও মামাকে পিটিয়ে ও কুপিয়ে গুরুতর জখম করেছে।

আমতলী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) কাজী সাখাওয়াত হোসেন তপু বলেন, বিষয়টি শুনেছি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।