সুখ পাখি দেখা দেবে কি?

Barisal Crime Trace
প্রকাশিত জুলাই ২০ মঙ্গলবার, ২০২১, ১০:৩৮ অপরাহ্ণ
সুখ পাখি দেখা দেবে কি?

আগামীকাল বুধবার দেশে পালিত হবে মুসলিম ধর্মাবলম্বীদের দ্বিতীয় বৃহৎ ধর্মীয় উৎসব পবিত্র ঈদ-উল-আযহা। সবার মতো আমিও মুখিয়ে আছি ঈদ উদযাপন করতে। তবে সেইসব ছেলেবেলার ঈদ আনন্দ এখন আর নেই, ভবিষ্যতে কোনদিন আসবে কিনা তাও জানা নেই।

 

বনের পাখি যখন খাঁচায় বন্ধি হয় তখন তার যে অনুভূতি তা একমাত্র ওই পাখিই জানে। মহামারী করোনার কারণে এখন আমরা অনেকটা সেই খাঁচায় বন্ধি পাখির মতোই। জানিনা কবে মুক্ত হবো এ করোনার ছোবল থেকে।

 

কালের বিবর্তনে দিন-মাস-বছর-যুগ পেরিয়ে এখনকার ঈদ আনন্দ একটু আলাদা। কেমন যেন ইট-পাথরের দেয়ালে বন্ধি কানামাছি খেলার মতো। দলবেধেঁ ঘুরতে যাওয়া, হৈ-হুল্লোর করা, বাড়িতে বাড়িতে শিশুদের কোলাহল এগুলো এখন আর দেখা যায় না। অবশ্য গ্রামাঞ্চলে এখনো শিশু-কিশোরদের ঈদ উদযাপন দেখে কিছুটা মনের খোরাক জোগানো যায়।

 

গত বছর ৮ মার্চ দেশে প্রথম করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হওয়ার পর সংক্রমন রোধে দেশব্যাপী, অঞ্চল ভিত্তিক দফায় দফায় লকডাউন ঘোষণা করে সরকার। প্রায় দেড় বছর হতে চলছে দেশের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ। স্কুলের বারান্দায় নেই শিশুদের কোলাহল। সোনামনিদের কলকাকলির শব্দ শুনতে পাওয়া যায় না। শিশু-কিশোররা বন্ধী জীবনে মোবাইল নির্ভর হয়ে পড়ে। তাদের পৃথিবী যেন এখন মোবাইল।

 

মহামারী করোনা প্রতিরোধে বিশ্বের প্রথম দেশ হিসেবে ফাইজার/বায়োএনটেকের করোনা ভাইরাসের টিকার অনুমোদন দেয় যুক্তরাজ্য। আর বাংলাদেশে কোভ্যাক্স থেকে পাওয়া ফাইজার-বায়োএনটেকের টিকার পরীক্ষামূলক প্রয়োগ শুরু করার পর দেশের মানুষ যেন হাঁফ ছেড়ে উঠে। তবে ভয়ঙ্কর করোনা ভাইরাস দিন দিন তার রূপ বদলাতে থাকায় সমগ্র বিশে^র মতো বাংলাদেশেও এর ভয়াবহতা দেখছে। প্রতিদিন অনেক তাজা প্রাণ ঝড়ে যাচ্ছে।

 

গত বছর করোনা ভাইরাসের আতঙ্কের মধ্যেই আনন্দ-বেদনা, দুঃখ-কষ্ট এবং অনিশ্চয়তায় অপরিচিত এক ঈদ উদযাপন করেছে দেশের মানুষ। করোনার কারণে ম্লান হয়ে গেছে গতবারের ঈদের আনন্দ।

 

করোনা দ্বিতীয় ঢেউয়ে এবারের ঈদেও আতঙ্ক বিরাজ করছে। দুঃখ কস্ট, অজানা আতংক যা-ই থাকুক তারপরেও মানুষ আশা করছে একদিন অদৃশ্য শত্রুকে পরাজিত করে আবার ফিরে আসবে সুদিন। কোমলমতি শিশুদের কোলাহলে মেঁতে উঠবে আকাশ-বাতাস। সেই আশায় বুধ বেঁধে আছি। তবে যেভাবে দেশে করোনা আক্রান্ত হয়ে তাজা প্রাণগুলো ঝড়ে পড়ছে তাতে মনের গহিনে বার বার ঘুরে একই প্রশ্ন উঠে, আদৌ কি সুখ পাখি দেখা দেবে?

 

—–এম.কে. রানা, গণমাধ্যম কর্মী।




আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি বরিশাল ক্রাইম ট্রেস”কে জানাতে।
ই-মেইল করুনঃ[email protected]