সব আফগান নিরাপদ তালেবানের হাতে, দাবি নিরাপত্তা প্রধানের

Barisal Crime Trace
প্রকাশিত আগস্ট ২৩ সোমবার, ২০২১, ০২:১৮ অপরাহ্ণ
সব আফগান নিরাপদ তালেবানের হাতে, দাবি নিরাপত্তা প্রধানের

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: ইসলামিক আমিরাতের অধীনে সব আফগান নাগরিক নিরাপদ বলে মন্তব্য করেছেন তালেবানের অন্যতম শীর্ষ নেতা ও কাবুলের নিরাপত্তা প্রধান খলিলুর রহমান হাক্কানি। তিনি বলছেন, তালেবানের হাতে সব আফগান নিরাপদ এবং এ কারণেই দেশের ৩৪টি প্রদেশজুড়ে সাধারণ ক্ষমা ঘোষণা করা হয়েছে।

 

রোববার (২২ আগস্ট) কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আলজাজিরার সঙ্গে আলাপকালে তিনি একথা বলেন। হাক্কানি বলেন, গত চার দশকের বেশি সময় ধরে যুদ্ধ ও এর ভয়াবহতা দেখে আসা আফগানদের শান্তি, শৃঙ্খলা ও নিরাপত্তা প্রতিষ্ঠায় কাজ করে যাচ্ছে তালেবান।

 

সাবেক আফগান-সোভিয়েত যুদ্ধে অংশ নেওয়া অভিজ্ঞ এই ব্যক্তি বলেন, ‘আমরা যদি বিশ্বের পরাশক্তিগুলোকে পরাজিত করতে পারি, তাহলে নিশ্চিতভাবেই আমরা আফগান জনগণের নিরাপত্তাও সুষ্ঠুভাবে দিতে পারবো।’

 

অবশ্য অনেক আফগান নাগরিক এখনও হাক্কানি নেটওয়ার্কের সমালোচনা করে থাকেন। এটি বিশ্বের অন্যতম বর্বর ও সহিংস গোষ্ঠী হিসেবে পরিচিত। এছাড়া হাক্কানিকে ‘বৈশ্বিক সন্ত্রাসীর’ তকমা দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র।

 

একইসঙ্গে খলিলুর রহমান হাক্কানির সন্ধানের জন্য ২০১১ সালের ফেব্রুয়ারিতে ৫০ লাখ মার্কিন ডলার পুরস্কার ঘোষণা করে মার্কিন অর্থ দফতর। এছাড়া হাক্কানি নিজেও জাতিসংঘের সন্ত্রাসী তালিকায় অন্তর্ভুক্ত রয়েছেন।

 

হাক্কানির এই বক্তব্য এমন এক সময়ে সামনে এলো যখন তালেবানের ক্ষমতা দখলের পর আতঙ্কে হাজার হাজার আফগান নাগরিক দেশ ছাড়তে কাবুলের হামিদ কারজাই আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ভিড় করছেন। দেশ ছাড়ার এই হিড়িকে বিমানবন্দর ও এর আশপাশের এলাকায় সহিংসতা, গুলি, বিশৃঙ্খলা ও হুড়োহুড়ির কারণে বহু মানুষ হতাহত হয়েছেন।

 

তবে কাবুলের নিরাপত্তা প্রধানের দায়িত্ব পালন করা খলিলুর রহমান হাক্কানি জোর দিয়ে বলছেন, সাধারণ মানুষের তালেবানকে ভয় পাওয়ার কিছু নেই। তার ভাষায়, ‘আমাদের শত্রুতা ছিল কেবল দখলদার বাহিনীর বিরুদ্ধে। বাইরে থেকে একটি পরাশক্তি দেশ এসে আমাদেরকে বিভক্ত করতে চেয়েছিল। তারা আমাদের ওপর যুদ্ধ চাপিয়ে দিয়েছিল। এখন আমাদের সঙ্গে আর কারও শত্রুতা নেই। আমরা সবাই আফগান নাগরিক।’




আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি বরিশাল ক্রাইম ট্রেস”কে জানাতে।
ই-মেইল করুনঃ[email protected]