স্বরূপকাঠি পৌরসভার সড়ক নির্মাণে ব্যাপক অনিয়মের অভিযোগ

Barisal Crime Trace
প্রকাশিত এপ্রিল ৮ বৃহস্পতিবার, ২০২১, ০৫:৪৪ পূর্বাহ্ণ
স্বরূপকাঠি পৌরসভার সড়ক নির্মাণে ব্যাপক অনিয়মের অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ স্বরূপকাঠী পৌরসভার দুই কিলোমিটার সড়ক নির্মাণে ব্যাপক অনিয়মের অভিযোগ পাওয়া গেছে। পৌরসভার ৩ নম্বর ওয়ার্ডের মামা ভাগিনার মোড় থেকে শহীদ স্মৃতি ডিগ্রি কলেজ হয়ে রুস্তুম মুন্সির মসজিদ পর্যন্ত সড়কটি পুনর্নিমাণ কাজে নিম্নমানের খোয়া, মানহীন বিটুমিনসহ যথাযথ ম্যাকাডম (রাস্তার পুরুত্ব) না দিয়ে রাস্তাটি নির্মাণ হচ্ছে।

 

পৌরসভার উপসহকারী প্রকৌশলী মামুন খানের সাথে যোগসাজসে রাস্তাটি নির্মাণে এ অনিয়ম করছেন ঠিকাদার। তবে অনিয়মের অভিযোগ অস্বীকার করেছেন সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা। দ্রুত রাস্তার নিন্মমানের মালামাল অপসারণ করে সঠিক উপকরণ ব্যবহার করে রাস্তা পুননির্মাণের দাবি জানিয়েছেন স্থানীয় বাসিন্দারা।

 

সরেজমিনে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, রাস্তায় মানহীন খোয়া বিছিয়ে সঠিকভাবে রোলার না দেয়া, নিম্নমানের বিটুমিন ব্যবহার করে ঠিকাদারের ইচ্ছা অনুযায়ী ঢালাইয়ের কাজ করছেন। পৌরসভার প্রকৌশল বিভাগের লোকজন ছাড়াই বিকেল থেকে রাত অবধি চলে ওই ঢালাইয়ের কাজ।

 

এসব বিষয়ে জানতে পেরে পৌরসভার মেয়র মো. গোলাম কবিরকে বিষয়টি জানালে তিনি সহকারী প্রকৌশলী নুর আল আজাদ ও উপসহকারী প্রকৌশলী (যিনি বিদ্যুৎ বিভাগের প্রকৌশলী) মামুন খানকে পাঠান। তারা সাইডে গিয়ে কাজের গুনগত মান যাচাই না করে ঠিকাদারকে ওই অবস্থায় কাজ চালিয়ে যেতে উৎসাহিত করেন। ঢালাইয়ের মালামালের বিষয়ে জানতে চাইলে কোন কথা বলার আগেই উপসহকারী প্রকৌশলী মামুন খান বলেন, সোজা সাপ্টা কথা নিয়মানুযায়ী রাস্তার কাজ করা হচ্ছে।

 

ওই সড়কে চলাচলকারী একাধিক অটো ড্রাইভার জানান, রাস্তার কাজে নিম্নমানের খোয়া ব্যবহার হচ্ছে। যা পা দিয়ে চাপ দিলেই ভেঙে যায়। তারা আরও বলেন, আমাদের দুর্দশা দূর করতে রাস্তা তৈরি হচ্ছে। কিন্তু ঠিকাদারের চুরির কারণে আমরা এর সুফল থেকে বঞ্চিত হবো। স্থানীয় বাসিন্দারা বলেন, নম্বরবিহীন ইটের খোয়া দিয়ে রাস্তার কাজ চলছে। পিচের পরিমাণও কম। এ রাস্তা বেশি দিন টিকবে কীভাবে। পৌর মেয়র মো. গোলাম কবির বলেন, অভিযোগ সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন। সঠিক নিয়ম কানুন মেনে কাজ করা হচ্ছে। যে মালামাল ব্যবহার করা হচ্ছে তা ল্যাবরেটরিতে সম্পূর্ণ পরীক্ষা করার পরে ব্যবহার করা হয়।




আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি বরিশাল ক্রাইম ট্রেস”কে জানাতে।
ই-মেইল করুনঃ[email protected]